০৫:১৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এয়ারটেল নিয়ে এলো ই-স্পোর্টসের বড় আসর

গেমারদের অপেক্ষার সময় শেষ করে দেশে শুরু হচ্ছে মোবাইল গেমিংয়ের সবচেয়ে বড় আসর ‘মোবাইল ম্যানিয়া ২০২৪’ পাওয়ার্ড বাই এয়ারটেল। এই টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে রবি আজিয়াটা লিমিটেডের সহযোগী ব্র্যান্ড এয়ারটেল প্রধান পৃষ্ঠপোষক হিসেবে যুক্ত হয়েছে দেশের জনপ্রিয় ই-স্পোর্টস প্ল্যাটফর্ম ডিসকভারি ওয়ান এর সাথে। বিজয়ীদের জন্য থাকছে ৩০ লাখ টাকার পুরস্কার।

রোববার রাজধানীর আলোকি কনভেনশন সেন্টারে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এ ঘোষণা দেয়া হয়। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রবি আজিয়াটা লিমিটেডের চিফ কমার্শিয়াল অফিসার শিহাব আহমাদ। অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন ডিসকভারি ওয়ান লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও কো-ফাউন্ডার সাদাব হোসেন।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, দেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল গেমিং টুর্নামেন্ট ‘মোবাইল ম্যানিয়া ২০২৪’ পাওয়ার্ড বাই এয়ারটেল-এ ‘ই-ফুটবল’, ‘কল অব ডিউটি মোবাইল’ ও ’মোবাইল লেজেন্ডস ব্যাং ব্যাং’- এই তিনটি গেম থাকছে। আসরের বিজয়ীরা পর্যায়ক্রমে অনলাইন কোয়ালিফায়ার, কোয়ার্টার ফাইনাল ও সেমিফাইনালে যাবে। শীর্ষ দুই দল আগামী জুলাইয়ে ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় গ্র্যান্ড ফিনালেতে অংশ নেবেন।

প্রধান পৃষ্ঠপোষক এয়ারটেল এর পক্ষ থেকে জানানো হয়, দেশে প্রথমবারের মত গেমিং প্ল্যাটফর্ম অনমো ক্লাউডকে তুলে ধরতে পেরে এয়ারটেল বেশ আনন্দিত। মোবাইল গেমিংয়ের ক্ষেত্রে ক্লাউড প্রযুক্তির মাধ্যমে রীতিমত বিপ্লব নিয়ে এসেছে অনমো। বর্তমানে অনমোর সাথেই আছে সাবওয়ে সার্ফার, কাট দ্য রোপ ম্যাজিক,
রায়মান জঙ্গল রানসহ জনপ্রিয় সব গেম।

এ ব্যাপারে রবি আজিয়াটা লিমিটেডের চিফ কমার্শিয়াল অফিসার শিহাব আহমাদ বলেন, ‘তারুণ্যের মিউজিক, বিনোদন বা গেমিং সবকিছুতে পাশে থাকে এয়ারটেল। দেশের তরুণ-তরুণীরা গেমিংয়ের প্রতি আগ্রহী হচ্ছে। প্রায় ৬০ লাখেরও বেশি গেমার ইস্পোর্টসে দারুণভাবে এগিয়ে যাচ্ছে। এ বিষয়টি লক্ষ্য রেখেই এয়ারটেল এনেছে ‘এনগেজ’এর মত ইস্পোর্টস প্ল্যাটফর্ম যেখানে গেমাররা ব্যস্ত থাকেন জনপ্রিয় সব গেমিংয়ে।

 

টপ গেমাররা লাইভে নিজেদের কৌশল দেখান যার দর্শক হন এয়ারটেল বাজ এর ফ্যানরা।’ এবারের আয়োজন সম্পর্কে ডিসকভারি ওয়ান লিমিটেড-এর কো-ফাউন্ডার সাদাব হোসেন বলেন, “আমরা খুবই আশাবাদী এবারের আয়োজন নিয়ে। এর আগে আমরা বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ ৩ টি টুর্নামেন্ট, ডি ওয়ান কাপ সিজন ১ ও ২ এবং ফিফা রয়্যাল ২০২৩ আয়োজন করেছি। মাত্র দুই বছরের ভেতরেই আমাদের সাথে গ্লোবাল ব্র্যান্ড এয়ারটেল বাংলাদেশ যুক্ত হয়েছে।

 

শীঘ্রই আমরা শুধুমাত্র বাংলাদেশ নয় বরং পুরো দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর জন্য টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে পারবো। বাংলাদেশে এবং আমাদের সহযোগী ব্র্যান্ডগুলোকে এই খাতের উন্নয়নে ও গেমারদের উন্নতির জন্য সাথে পাবো বলে আশা করি।

ঘূর্ণিঝড় রেমাল মোকাবেলায় কতটুকু প্রস্তুত পবিপ্রবি?

এয়ারটেল নিয়ে এলো ই-স্পোর্টসের বড় আসর

আপডেট সময় : ০৭:৪২:৫৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ৬ মে ২০২৪

গেমারদের অপেক্ষার সময় শেষ করে দেশে শুরু হচ্ছে মোবাইল গেমিংয়ের সবচেয়ে বড় আসর ‘মোবাইল ম্যানিয়া ২০২৪’ পাওয়ার্ড বাই এয়ারটেল। এই টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে রবি আজিয়াটা লিমিটেডের সহযোগী ব্র্যান্ড এয়ারটেল প্রধান পৃষ্ঠপোষক হিসেবে যুক্ত হয়েছে দেশের জনপ্রিয় ই-স্পোর্টস প্ল্যাটফর্ম ডিসকভারি ওয়ান এর সাথে। বিজয়ীদের জন্য থাকছে ৩০ লাখ টাকার পুরস্কার।

রোববার রাজধানীর আলোকি কনভেনশন সেন্টারে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এ ঘোষণা দেয়া হয়। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রবি আজিয়াটা লিমিটেডের চিফ কমার্শিয়াল অফিসার শিহাব আহমাদ। অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন ডিসকভারি ওয়ান লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও কো-ফাউন্ডার সাদাব হোসেন।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, দেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল গেমিং টুর্নামেন্ট ‘মোবাইল ম্যানিয়া ২০২৪’ পাওয়ার্ড বাই এয়ারটেল-এ ‘ই-ফুটবল’, ‘কল অব ডিউটি মোবাইল’ ও ’মোবাইল লেজেন্ডস ব্যাং ব্যাং’- এই তিনটি গেম থাকছে। আসরের বিজয়ীরা পর্যায়ক্রমে অনলাইন কোয়ালিফায়ার, কোয়ার্টার ফাইনাল ও সেমিফাইনালে যাবে। শীর্ষ দুই দল আগামী জুলাইয়ে ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় গ্র্যান্ড ফিনালেতে অংশ নেবেন।

প্রধান পৃষ্ঠপোষক এয়ারটেল এর পক্ষ থেকে জানানো হয়, দেশে প্রথমবারের মত গেমিং প্ল্যাটফর্ম অনমো ক্লাউডকে তুলে ধরতে পেরে এয়ারটেল বেশ আনন্দিত। মোবাইল গেমিংয়ের ক্ষেত্রে ক্লাউড প্রযুক্তির মাধ্যমে রীতিমত বিপ্লব নিয়ে এসেছে অনমো। বর্তমানে অনমোর সাথেই আছে সাবওয়ে সার্ফার, কাট দ্য রোপ ম্যাজিক,
রায়মান জঙ্গল রানসহ জনপ্রিয় সব গেম।

এ ব্যাপারে রবি আজিয়াটা লিমিটেডের চিফ কমার্শিয়াল অফিসার শিহাব আহমাদ বলেন, ‘তারুণ্যের মিউজিক, বিনোদন বা গেমিং সবকিছুতে পাশে থাকে এয়ারটেল। দেশের তরুণ-তরুণীরা গেমিংয়ের প্রতি আগ্রহী হচ্ছে। প্রায় ৬০ লাখেরও বেশি গেমার ইস্পোর্টসে দারুণভাবে এগিয়ে যাচ্ছে। এ বিষয়টি লক্ষ্য রেখেই এয়ারটেল এনেছে ‘এনগেজ’এর মত ইস্পোর্টস প্ল্যাটফর্ম যেখানে গেমাররা ব্যস্ত থাকেন জনপ্রিয় সব গেমিংয়ে।

 

টপ গেমাররা লাইভে নিজেদের কৌশল দেখান যার দর্শক হন এয়ারটেল বাজ এর ফ্যানরা।’ এবারের আয়োজন সম্পর্কে ডিসকভারি ওয়ান লিমিটেড-এর কো-ফাউন্ডার সাদাব হোসেন বলেন, “আমরা খুবই আশাবাদী এবারের আয়োজন নিয়ে। এর আগে আমরা বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ ৩ টি টুর্নামেন্ট, ডি ওয়ান কাপ সিজন ১ ও ২ এবং ফিফা রয়্যাল ২০২৩ আয়োজন করেছি। মাত্র দুই বছরের ভেতরেই আমাদের সাথে গ্লোবাল ব্র্যান্ড এয়ারটেল বাংলাদেশ যুক্ত হয়েছে।

 

শীঘ্রই আমরা শুধুমাত্র বাংলাদেশ নয় বরং পুরো দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর জন্য টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে পারবো। বাংলাদেশে এবং আমাদের সহযোগী ব্র্যান্ডগুলোকে এই খাতের উন্নয়নে ও গেমারদের উন্নতির জন্য সাথে পাবো বলে আশা করি।