০৭:১২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ১ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুড়িগ্রামে ইন্টার্ন ভাতার দাবিতে নার্সদের অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি

কুড়িগ্রামে ইন্টার্ন ভাতা আদায়ের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি শুরু করেছে ডিপ্লোমা ইন নার্সিং সায়েন্স অ্যান্ড মিডওয়াইফারি এবং ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারী পাস করা ইন্টার্ন নার্সরা। বাংলাদেশ ডিপ্লোমা ইন্টার্ন নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন কুড়িগ্রাম জেলা শাখার আয়োজনে রবিববার সকাল ১০টা থেকে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের সামনে ৬৯ জন ইন্টার্ন নার্স এই কর্মবিরতি শুরু করেন।
কর্মবিরতি ছাড়াও দুপুরে কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের সামনে এক মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
এতে ইন্টার্ন নার্সরা বলেন, আমাদের লগবুকের ১৪নং পৃষ্ঠার কোড অব কন্ডাক্টের ইন্টার্ন ভাতার কথা উল্লেখ থাকা সত্ত্বেও আমরা কোনো ইন্টার্ন ভাতা পাচ্ছি না। সিনিয়র নার্সরা যেভাবে ডিউটি করেন আমরাও সেভাবে ডিউটি করি। বর্তমানে আমাদের কোনো হোস্টেলের সুবিধা নেই। দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি, বাসা ভাড়া, থাকা-খাওয়া, যাতায়াত, হাত খরচসহ সব মিলিয়ে ৮-১০ হাজার টাকা খরচ হয়ে যায়। ইন্টার্ন ভাতা না পাওয়ায় আমাদেরকে নিম্নমানের বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতে হচ্ছে। পড়াশোনা শেষ করে ইন্টার্নশিপ করা অবস্থায় বাসা থেকে টাকা এনে ইন্টার্নশিপ করাটাও আমাদের জন্য কষ্টসাধ্য হয়ে যাচ্ছে। যার ফলে আমাদের অধিকার আদায়ের লক্ষ্যে কর্মবিরতির পথ বেছে নিতে হচ্ছে। যতদিন পর্যন্ত দাবি আদায় না হবে ততদিন পর্যন্ত কর্মবিরতি অব্যাহত রাখা হবে বলে জানান ইন্টার্ন নার্সরা।
এ সময় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ডিপ্লোমা ইন্টার্ন নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন কুড়িগ্রাম জেলা শাখার সভাপতি তুর্য দেব, সহ সভাপতি কামরুন্নাহার, সাধারণ সম্পাদক শাওন মিয়া, সদস্য সচিব আখি, প্রচার সম্পাদক শাহানাজ, সাংগঠনিক সম্পাদক তারিফুল ইসলাম, সদস্য রবিউল ইসলাম রানা প্রমুখ।

মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বোচ্চ সম্মান দেখাতে হবে : প্রধানমন্ত্রী

কুড়িগ্রামে ইন্টার্ন ভাতার দাবিতে নার্সদের অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি

আপডেট সময় : ০২:৫৮:৪৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১ অক্টোবর ২০২৩

কুড়িগ্রামে ইন্টার্ন ভাতা আদায়ের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি শুরু করেছে ডিপ্লোমা ইন নার্সিং সায়েন্স অ্যান্ড মিডওয়াইফারি এবং ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারী পাস করা ইন্টার্ন নার্সরা। বাংলাদেশ ডিপ্লোমা ইন্টার্ন নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন কুড়িগ্রাম জেলা শাখার আয়োজনে রবিববার সকাল ১০টা থেকে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের সামনে ৬৯ জন ইন্টার্ন নার্স এই কর্মবিরতি শুরু করেন।
কর্মবিরতি ছাড়াও দুপুরে কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের সামনে এক মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
এতে ইন্টার্ন নার্সরা বলেন, আমাদের লগবুকের ১৪নং পৃষ্ঠার কোড অব কন্ডাক্টের ইন্টার্ন ভাতার কথা উল্লেখ থাকা সত্ত্বেও আমরা কোনো ইন্টার্ন ভাতা পাচ্ছি না। সিনিয়র নার্সরা যেভাবে ডিউটি করেন আমরাও সেভাবে ডিউটি করি। বর্তমানে আমাদের কোনো হোস্টেলের সুবিধা নেই। দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি, বাসা ভাড়া, থাকা-খাওয়া, যাতায়াত, হাত খরচসহ সব মিলিয়ে ৮-১০ হাজার টাকা খরচ হয়ে যায়। ইন্টার্ন ভাতা না পাওয়ায় আমাদেরকে নিম্নমানের বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতে হচ্ছে। পড়াশোনা শেষ করে ইন্টার্নশিপ করা অবস্থায় বাসা থেকে টাকা এনে ইন্টার্নশিপ করাটাও আমাদের জন্য কষ্টসাধ্য হয়ে যাচ্ছে। যার ফলে আমাদের অধিকার আদায়ের লক্ষ্যে কর্মবিরতির পথ বেছে নিতে হচ্ছে। যতদিন পর্যন্ত দাবি আদায় না হবে ততদিন পর্যন্ত কর্মবিরতি অব্যাহত রাখা হবে বলে জানান ইন্টার্ন নার্সরা।
এ সময় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ডিপ্লোমা ইন্টার্ন নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন কুড়িগ্রাম জেলা শাখার সভাপতি তুর্য দেব, সহ সভাপতি কামরুন্নাহার, সাধারণ সম্পাদক শাওন মিয়া, সদস্য সচিব আখি, প্রচার সম্পাদক শাহানাজ, সাংগঠনিক সম্পাদক তারিফুল ইসলাম, সদস্য রবিউল ইসলাম রানা প্রমুখ।