০৭:৩৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফের পাকিস্তানে ঊর্ধ্বগতি পেট্রলের দাম

⏺অনুষ্ঠানে লালগালিচা ব্যবহার বন্ধের নির্দেশ

 

 

 

 

 

মুদ্রাস্ফীতিতে জর্জরিত পাকিস্তানের জনগণের দুর্ভোগ আরো বাড়ছে। ফের বাড়তে যাচ্ছে পেট্রলের দাম। এদিকে পাকিস্তানে সরকারি যেকোনো আয়োজনে লালগালিচার ব্যবহার বন্ধের নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ।

 

দেশের শিল্প কর্মকর্তাদের মতে, আন্তর্জাতিক বাজারে অপরিশোধিত তেলের মূল্য বৃদ্ধির কারণে পেট্রলের দাম প্রতি লিটারে প্রায় ১০ রুপি বাড়তে পারে। বর্তমানে পাকিস্তানে লিটার প্রতি পেট্রল বিক্রি হচ্ছে প্রায় ২৮০ রুপি করে। পরবর্তী পাক্ষিক পর্যালোচনায় এই দাম লিটার প্রতি বেড়ে প্রায় ২৯০ রুপি হতে পারে। এদিকে হাই-স্পিড ডিজেলের (এইচএসডি) দাম প্রতি লিটারে ১ দশমিক ৩০ রুপি কমে ২৮৪.২৬ রুপি হতে পারে বলে অনুমান করা হয়েছে। বর্তমানে এর দাম প্রতি লিটার ২৮৫.৮৬ রুপি। কেরোসিনের দাম প্রতি লিটারে ০.১৭ রুপি কমে ১৮৮.৪৯ রুপি হতে পারে বলে ধারণা। একইভাবে লাইট ডিজেল তেলের (এলডিও) দাম লিটার প্রতি ০.৪৫ রুপি বাড়তে পারে।

 

 

একজন কর্মকর্তা বলেছেন, ‘আন্তর্জাতিক বাজারে দাম বৃদ্ধির কারণে পেট্রলের স্থানীয় দাম বাড়ানো হবে। গত দুই সপ্তাহে পেট্রলের আন্তর্জাতিক মূল্য ব্যারেল প্রতি ৯৫ ডলার। মার্চের প্রথম পাক্ষিকে এই দাম ব্যারেল প্রতি ৯০ ডলার ছিল। বিশ্ব বাজারে পেট্রলের দাম বৃদ্ধির কারণে ব্যাপক পরিবর্তন আসবে।’
এেিদক গত শনিবার দেশটির মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের পক্ষ থেকে জারি করা এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও সরকারি কর্মকর্তাদের নিয়ে ভবিষ্যতে যেসব সরকারি অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে, তাতে লালগালিচা ব্যবহার করা যাবে না। সংশ্লিষ্টদের এমন নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ। তবে পাকিস্তানে বিদেশি অতিথি ও কূটনীতিকদের জন্য আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রটোকল মেনে লালগালিচা ব্যবহারে কোনো বিধিনিষেধ থাকবে না। সরকারি অনুষ্ঠানে লালগালিচার ব্যবহার কেন বন্ধ করলেন, সেই বিষয়ে কিছু জানানো হয়নি।

 

এর আগে পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি জানান, রাষ্ট্রপ্রধানের পদে থাকা অবস্থায় বেতন নেবেন না তিনি। অর্থনৈতিক সংকটকালে দেশের দূরদর্শী আর্থিক ব্যবস্থাপনাকে উৎসাহিত করার জন্য তিনি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

 

জনপ্রিয় সংবাদ

ফের পাকিস্তানে ঊর্ধ্বগতি পেট্রলের দাম

আপডেট সময় : ০৭:৪২:৪১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১ এপ্রিল ২০২৪

⏺অনুষ্ঠানে লালগালিচা ব্যবহার বন্ধের নির্দেশ

 

 

 

 

 

মুদ্রাস্ফীতিতে জর্জরিত পাকিস্তানের জনগণের দুর্ভোগ আরো বাড়ছে। ফের বাড়তে যাচ্ছে পেট্রলের দাম। এদিকে পাকিস্তানে সরকারি যেকোনো আয়োজনে লালগালিচার ব্যবহার বন্ধের নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ।

 

দেশের শিল্প কর্মকর্তাদের মতে, আন্তর্জাতিক বাজারে অপরিশোধিত তেলের মূল্য বৃদ্ধির কারণে পেট্রলের দাম প্রতি লিটারে প্রায় ১০ রুপি বাড়তে পারে। বর্তমানে পাকিস্তানে লিটার প্রতি পেট্রল বিক্রি হচ্ছে প্রায় ২৮০ রুপি করে। পরবর্তী পাক্ষিক পর্যালোচনায় এই দাম লিটার প্রতি বেড়ে প্রায় ২৯০ রুপি হতে পারে। এদিকে হাই-স্পিড ডিজেলের (এইচএসডি) দাম প্রতি লিটারে ১ দশমিক ৩০ রুপি কমে ২৮৪.২৬ রুপি হতে পারে বলে অনুমান করা হয়েছে। বর্তমানে এর দাম প্রতি লিটার ২৮৫.৮৬ রুপি। কেরোসিনের দাম প্রতি লিটারে ০.১৭ রুপি কমে ১৮৮.৪৯ রুপি হতে পারে বলে ধারণা। একইভাবে লাইট ডিজেল তেলের (এলডিও) দাম লিটার প্রতি ০.৪৫ রুপি বাড়তে পারে।

 

 

একজন কর্মকর্তা বলেছেন, ‘আন্তর্জাতিক বাজারে দাম বৃদ্ধির কারণে পেট্রলের স্থানীয় দাম বাড়ানো হবে। গত দুই সপ্তাহে পেট্রলের আন্তর্জাতিক মূল্য ব্যারেল প্রতি ৯৫ ডলার। মার্চের প্রথম পাক্ষিকে এই দাম ব্যারেল প্রতি ৯০ ডলার ছিল। বিশ্ব বাজারে পেট্রলের দাম বৃদ্ধির কারণে ব্যাপক পরিবর্তন আসবে।’
এেিদক গত শনিবার দেশটির মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের পক্ষ থেকে জারি করা এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও সরকারি কর্মকর্তাদের নিয়ে ভবিষ্যতে যেসব সরকারি অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে, তাতে লালগালিচা ব্যবহার করা যাবে না। সংশ্লিষ্টদের এমন নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ। তবে পাকিস্তানে বিদেশি অতিথি ও কূটনীতিকদের জন্য আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রটোকল মেনে লালগালিচা ব্যবহারে কোনো বিধিনিষেধ থাকবে না। সরকারি অনুষ্ঠানে লালগালিচার ব্যবহার কেন বন্ধ করলেন, সেই বিষয়ে কিছু জানানো হয়নি।

 

এর আগে পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি জানান, রাষ্ট্রপ্রধানের পদে থাকা অবস্থায় বেতন নেবেন না তিনি। অর্থনৈতিক সংকটকালে দেশের দূরদর্শী আর্থিক ব্যবস্থাপনাকে উৎসাহিত করার জন্য তিনি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।