১০:১৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ২০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ব্যারিস্টার সুমনকে ‘ফেসবুকের এমপি’ বললেন প্রধানমন্ত্রী

হবিগঞ্জ-৪ (মাধবপুর-চুনারুঘাট) আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার সায়েদুল হক সুমন বলেছেন, ‘‘নেত্রী (শেখ হাসিনা) আমাকে একটা কথা বলেছেন, ‘তোমাকে তো ফেসবুক থেকেই চিনি। তুমি তো ফেসবুকের এমপিই হয়ে গেছো’।”

রোববার (২৮ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে বৈঠক করেন দ্বাদশ সংসদে নির্বাচনে জয়ী স্বতন্ত্র এমপিরা। এরপর গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন স্বতন্ত্র এমপিদের অনেকে। সাংবাদিকরা তখন ব্যারিস্টার সুমনের কাছে জানতে চান, মন্ত্রীকে হারিয়ে আপনি বিজয়ী হয়েছেন, এ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী কিছু বলেছেন কি না। এর জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

ব্যারিস্টার সুমন আরও বলেন, আজকে আমার জন্য ভালো দিন। প্রধানমন্ত্রীর সামনে বক্তব্য রাখার সুযোগ পেয়েছি। উনাকে বলেছি, যারা নৌকা নিয়ে পাস করেছেন তারা হলো আপনার রেগুলার ফোর্স, আর আমরা যারা স্বতন্ত্র তারা হলো রিজার্ভ ফোর্স। দুই ফোর্সই কাজ করবে, দেশের জন্য, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, সবই আমার। এরপর তো আর কোনো বক্তব্য থাকে না।

হবিগঞ্জের এ স্বতন্ত্র এমপি জানান, প্রধানমন্ত্রী তাদেরকে বলেছেন, সরকারি দলের এমপি যারা, সংসদে তাদের বক্তব্য দেয়া ও বলার সুযোগ থাকে কম। যেহেতু তারা স্বতন্ত্র হিসেবে আছেন, তাই সরকার ভালো কাজ করলে সেটা যেন বলি, আর খারাপ করলে সমালোচনা-প্রতিবাদ করি। তাদেরকে (স্বতন্ত্র) বরং এক ডিগ্রি বেশি স্বাধীনতা দিয়েছেন।

ব্যারিস্টার সুমনকে ‘ফেসবুকের এমপি’ বললেন প্রধানমন্ত্রী

আপডেট সময় : ০৮:৪৮:১৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৪

হবিগঞ্জ-৪ (মাধবপুর-চুনারুঘাট) আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার সায়েদুল হক সুমন বলেছেন, ‘‘নেত্রী (শেখ হাসিনা) আমাকে একটা কথা বলেছেন, ‘তোমাকে তো ফেসবুক থেকেই চিনি। তুমি তো ফেসবুকের এমপিই হয়ে গেছো’।”

রোববার (২৮ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে বৈঠক করেন দ্বাদশ সংসদে নির্বাচনে জয়ী স্বতন্ত্র এমপিরা। এরপর গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন স্বতন্ত্র এমপিদের অনেকে। সাংবাদিকরা তখন ব্যারিস্টার সুমনের কাছে জানতে চান, মন্ত্রীকে হারিয়ে আপনি বিজয়ী হয়েছেন, এ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী কিছু বলেছেন কি না। এর জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

ব্যারিস্টার সুমন আরও বলেন, আজকে আমার জন্য ভালো দিন। প্রধানমন্ত্রীর সামনে বক্তব্য রাখার সুযোগ পেয়েছি। উনাকে বলেছি, যারা নৌকা নিয়ে পাস করেছেন তারা হলো আপনার রেগুলার ফোর্স, আর আমরা যারা স্বতন্ত্র তারা হলো রিজার্ভ ফোর্স। দুই ফোর্সই কাজ করবে, দেশের জন্য, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, সবই আমার। এরপর তো আর কোনো বক্তব্য থাকে না।

হবিগঞ্জের এ স্বতন্ত্র এমপি জানান, প্রধানমন্ত্রী তাদেরকে বলেছেন, সরকারি দলের এমপি যারা, সংসদে তাদের বক্তব্য দেয়া ও বলার সুযোগ থাকে কম। যেহেতু তারা স্বতন্ত্র হিসেবে আছেন, তাই সরকার ভালো কাজ করলে সেটা যেন বলি, আর খারাপ করলে সমালোচনা-প্রতিবাদ করি। তাদেরকে (স্বতন্ত্র) বরং এক ডিগ্রি বেশি স্বাধীনতা দিয়েছেন।