০৪:৩৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

 ” কুমিল্লার বাঘা শরীফ চ্যাম্পিয়ন” কক্সবাজার ডিসি সাহেবের বলী খেলা ও বৈশাখী মেলা

কক্সবাজারের ঐতিহ্যবাহী ডিসি সাহেবের বলী খেলায় টানা দ্বিতীয় বার চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন কুমিল্লার হোমনা উপজেলার মণিপুর গ্রামের বাঘা শরীফ বলী।
শনিবার (১১ মে) বিকেলে কক্সবাজার বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমিন স্টেডিয়ামে কক্সবাজার ডিসি সাহেবের (জেলা প্রশাসক) ৬৯ তম বলীখেলা ও বৈশাখী মেলার আজ দ্বিতীয় ও সমাপনী দিনে ফাইনালে মুখোমুখি হয় বাঘা শরীফ বলী ও কক্সবাজারের মহেশখালীর হোয়ানক ছনখোলা পাড়ার শাহেদ হোসেন কালু বলী।
ফাইনালে ৮ মিনিট লাড়াইয়ের পর বাঘা শরীফের কাছে হার মানতে হয় কালুকে ।
এ খেলায় ২ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন  মহেশখালীর মোহাম্মদ হোসেন বলী। ৩ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন মহেশখালীর শফি উল্লাহ বলী।
বলী খেলার পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার মো. তোফায়েল ইসলাম।
তিনি বলেন, মাদক, সন্ত্রাস ও অপসংস্কৃতির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে গ্রাম্য খেলাধুলার বিকল্প নেই। যারা খেলছেন তাদের যত্ন করা আমাদের উচিত। গ্রামীন খেলাধুলাকে আরো প্রসার করতে উচ্চ পর্যায়ে সুপারিশ থাকবে।
এসময় কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মুহম্মদ শাহীন ইমরান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) জাহিদ ইকবাল, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) বিভীষণ কান্তি দাশ, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির ধর্মবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সিরাজুল মোস্তফা, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জসিম উদ্দীন ও খেলা উদযাপন পরিষদের সদস্য সচিব হেলাল উদ্দিন কবিরসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।
চ্যাম্পিয়ন বাঘা শরীফ বলীকে ২৫ হাজার টাকা প্রাইজমানি ও ট্রফি, রানার আপ কালু বলীকে ১৫ হাজার টাকা ও ট্রফি দেয়া হয়।
২ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন মোহাম্মদ হোসেন বলীকে ১২ হাজার টাকা প্রাইজ মানি, ট্রফি, রানার আপ লালু বলীকে ৮ হাজার টাকা প্রাইজমানি ও ট্রফি দেয়া হয়।
৩ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন মোহাম্মদ শফি উল্লাহ বলীকে ১০ হাজার টাকা প্রাইজমানি, ট্রফি এবং রানার আপ আমিন বলীকে ৭ হাজার টাকা প্রাইজমানি ও ট্রফি দেয়া হয়।।

ঘূর্ণিঝড় রেমাল মোকাবেলায় কতটুকু প্রস্তুত পবিপ্রবি?

 ” কুমিল্লার বাঘা শরীফ চ্যাম্পিয়ন” কক্সবাজার ডিসি সাহেবের বলী খেলা ও বৈশাখী মেলা

আপডেট সময় : ০৮:৪৭:৪৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ১১ মে ২০২৪
কক্সবাজারের ঐতিহ্যবাহী ডিসি সাহেবের বলী খেলায় টানা দ্বিতীয় বার চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন কুমিল্লার হোমনা উপজেলার মণিপুর গ্রামের বাঘা শরীফ বলী।
শনিবার (১১ মে) বিকেলে কক্সবাজার বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমিন স্টেডিয়ামে কক্সবাজার ডিসি সাহেবের (জেলা প্রশাসক) ৬৯ তম বলীখেলা ও বৈশাখী মেলার আজ দ্বিতীয় ও সমাপনী দিনে ফাইনালে মুখোমুখি হয় বাঘা শরীফ বলী ও কক্সবাজারের মহেশখালীর হোয়ানক ছনখোলা পাড়ার শাহেদ হোসেন কালু বলী।
ফাইনালে ৮ মিনিট লাড়াইয়ের পর বাঘা শরীফের কাছে হার মানতে হয় কালুকে ।
এ খেলায় ২ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন  মহেশখালীর মোহাম্মদ হোসেন বলী। ৩ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন মহেশখালীর শফি উল্লাহ বলী।
বলী খেলার পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার মো. তোফায়েল ইসলাম।
তিনি বলেন, মাদক, সন্ত্রাস ও অপসংস্কৃতির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে গ্রাম্য খেলাধুলার বিকল্প নেই। যারা খেলছেন তাদের যত্ন করা আমাদের উচিত। গ্রামীন খেলাধুলাকে আরো প্রসার করতে উচ্চ পর্যায়ে সুপারিশ থাকবে।
এসময় কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মুহম্মদ শাহীন ইমরান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) জাহিদ ইকবাল, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) বিভীষণ কান্তি দাশ, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির ধর্মবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সিরাজুল মোস্তফা, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জসিম উদ্দীন ও খেলা উদযাপন পরিষদের সদস্য সচিব হেলাল উদ্দিন কবিরসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।
চ্যাম্পিয়ন বাঘা শরীফ বলীকে ২৫ হাজার টাকা প্রাইজমানি ও ট্রফি, রানার আপ কালু বলীকে ১৫ হাজার টাকা ও ট্রফি দেয়া হয়।
২ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন মোহাম্মদ হোসেন বলীকে ১২ হাজার টাকা প্রাইজ মানি, ট্রফি, রানার আপ লালু বলীকে ৮ হাজার টাকা প্রাইজমানি ও ট্রফি দেয়া হয়।
৩ নম্বর মেডেলে চ্যাম্পিয়ন মোহাম্মদ শফি উল্লাহ বলীকে ১০ হাজার টাকা প্রাইজমানি, ট্রফি এবং রানার আপ আমিন বলীকে ৭ হাজার টাকা প্রাইজমানি ও ট্রফি দেয়া হয়।।