১০:০০ অপরাহ্ন, রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ২০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

খেলাধুলা ও শরীরচর্চা শিক্ষার্থীদের দেশপ্রেমেরও শিক্ষা দেয় : চবি উপাচার্য 

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ আবদুর রব হলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে চবি উপাচার্য  “খেলাধুলা ও শরীরচর্চা শিক্ষার্থীদের দেশপ্রেমেরও শিক্ষা দেয়” বলে এমন মন্তব্য করেন।
বিশ্ববিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া উৎসব-২০২৪’ উদযাপন উপলক্ষ্যে
সোমবার (৫ ফেব্রুয়ারি) চবি কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে চবি শহীদ আবদুর রব হলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।
ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ ক্রীড়া প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চবি কেন্দ্রীয় বার্ষিক ক্রীড়া উপদেষ্টা কমিটির সভাপতি ও চবি মাননীয় উপ-উপাচার্য (একাডেমিক) প্রফেসর বেনু কুমার দে। এতে সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চবি জীব বিজ্ঞান অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মোঃ তৌহিদ হোসেন ও চবি ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. রাশেদ মোস্তফা। চবি শহীদ আবদুর রব হলের প্রভোস্ট প্রফেসর ড. মোহাম্মদ নূরুল আজিম সিকদার এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন চবি শারীরিক শিক্ষা ও ক্রীড়া বিজ্ঞান বিভাগের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) আনিসুল আলম।
ক্রীড়া প্রতিযোগীতার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন চবি শহীদ আবদুর রব হল মসজিদের পেশ ইমাম মাওলানা মীর মোঃ মোসলেহ উদ্দিন। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন চবি ডেপুটি রেজিস্ট্রার (তথ্য) মোহাম্মদ হোসেন।
মাননীয় উপাচার্য তাঁর বক্তব্যে ক্রীড়াবিদ ও আমন্ত্রিত অতিথিসহ অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকলকে শুভেচ্ছা ও স্বাগত জানান। তিনি বলেন, “খেলাধুলা ও শরীরচর্চা শিক্ষার্থীদের সময়ানুবর্তীতা, ভ্রাতৃত্ববোধ, নিয়মানুবর্তিতা, সহিষ্ণুতা, শৃংখলাবোধ ও দেশপ্রেমেরও শিক্ষা দেয়। নিয়মিত খেলাধুলা অনুশীলন ও শরীরচর্চার মাধ্যমে সুস্বাস্থ্য ও সুন্দর মন তৈরি হয়। সুস্থ শরীর ও সুন্দর মন নিয়ে লেখাপড়ায় মনোনিবেশ করলে অধিক সফলতা অর্জন করা সম্ভব।” মাননীয় উপাচার্য ‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ বিনির্মাণে ক্রীড়াবিদসহ শিক্ষার্থীদের স্মার্ট নাগরিক হয়ে গড়ে উঠার আহবান জানান। তিনি চবি শহীদ আবদুর রব হলের সার্বিক সফলতা কামনা করে অতিথিদের সাথে নিয়ে বেলুন ও ফেস্টুন উড়িয়ে উক্ত হলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা-২০২৪ এর শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন।
অনুষ্ঠানে জাতীয় সংগীতের সুরের মুর্চ্ছনায় মাননীয় উপাচার্য জাতীয় পতাকা, মাননীয় উপ-উপাচার্য (একাডেমিক) বিশ্ববিদ্যালয় পতাকা, চবি শহীদ আবদুর রব হলের প্রভোস্ট হল পতাকা এবং শারীরিক শিক্ষা বিভাগের পরিচালক অলিম্পিক পতাকা উত্তোলন করেন। মশাল হাতে মাঠ প্রদক্ষিণ করেন উক্ত হলের কৃতি ক্রীড়াবিদ জহিরুল ইসলাম। বিচারকদের পক্ষে প্রধান বিচারক চবি মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আবুল মনছুর এবং ক্রীড়াবিদদের পক্ষে কৃতি ক্রীড়াবিদ তরিকুল ইসলামকে মাননীয় উপাচার্য শপথবাক্য পাঠ করান। চবি শহীদ আবদুর রব হলের আবাসিক শিক্ষক ও দলের টিম ম্যানেজার মোহাম্মদ সাইদুল ইসলাম সরকার এর নির্দেশনায় হলের শিক্ষার্থী কৃতি ক্রীড়াবিদ তরিকুল ইসলাম এর নেতৃত্বে অনুষ্ঠিত হয় মার্চপাস্ট। হলের পতাকা বহন করেন হলের কৃতি ক্রীড়াবিদ মেহেরাজুল আবেদীন রিফাত।
অনুষ্ঠানে চবি সিনেট ও সিন্ডিকেট সদস্যবৃন্দ, চবি শিক্ষক সমিতির নেতৃবৃন্দ, চবি রেজিস্ট্রার, চবি বিভিন্ন হলের প্রভোস্টবৃন্দ, চবি প্রক্টর ও সহকারী প্রক্টরবৃন্দ, চবি শহীদ আবদুর রব হলের আবাসিক শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ, চবি বিভিন্ন বিভাগীয় সভাপতি, ইনস্টিটিউট ও গবেষণা কেন্দ্রের পরিচালকবৃন্দ, বিভিন্ন অফিস প্রধানবৃন্দ, চবি কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ, ক্রীড়ামোদী শিক্ষার্থীবৃন্দ, প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ এবং সূধীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

খেলাধুলা ও শরীরচর্চা শিক্ষার্থীদের দেশপ্রেমেরও শিক্ষা দেয় : চবি উপাচার্য 

আপডেট সময় : ০৭:৫২:৩৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ আবদুর রব হলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে চবি উপাচার্য  “খেলাধুলা ও শরীরচর্চা শিক্ষার্থীদের দেশপ্রেমেরও শিক্ষা দেয়” বলে এমন মন্তব্য করেন।
বিশ্ববিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া উৎসব-২০২৪’ উদযাপন উপলক্ষ্যে
সোমবার (৫ ফেব্রুয়ারি) চবি কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে চবি শহীদ আবদুর রব হলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।
ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ ক্রীড়া প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চবি কেন্দ্রীয় বার্ষিক ক্রীড়া উপদেষ্টা কমিটির সভাপতি ও চবি মাননীয় উপ-উপাচার্য (একাডেমিক) প্রফেসর বেনু কুমার দে। এতে সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চবি জীব বিজ্ঞান অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মোঃ তৌহিদ হোসেন ও চবি ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. রাশেদ মোস্তফা। চবি শহীদ আবদুর রব হলের প্রভোস্ট প্রফেসর ড. মোহাম্মদ নূরুল আজিম সিকদার এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন চবি শারীরিক শিক্ষা ও ক্রীড়া বিজ্ঞান বিভাগের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) আনিসুল আলম।
ক্রীড়া প্রতিযোগীতার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন চবি শহীদ আবদুর রব হল মসজিদের পেশ ইমাম মাওলানা মীর মোঃ মোসলেহ উদ্দিন। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন চবি ডেপুটি রেজিস্ট্রার (তথ্য) মোহাম্মদ হোসেন।
মাননীয় উপাচার্য তাঁর বক্তব্যে ক্রীড়াবিদ ও আমন্ত্রিত অতিথিসহ অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকলকে শুভেচ্ছা ও স্বাগত জানান। তিনি বলেন, “খেলাধুলা ও শরীরচর্চা শিক্ষার্থীদের সময়ানুবর্তীতা, ভ্রাতৃত্ববোধ, নিয়মানুবর্তিতা, সহিষ্ণুতা, শৃংখলাবোধ ও দেশপ্রেমেরও শিক্ষা দেয়। নিয়মিত খেলাধুলা অনুশীলন ও শরীরচর্চার মাধ্যমে সুস্বাস্থ্য ও সুন্দর মন তৈরি হয়। সুস্থ শরীর ও সুন্দর মন নিয়ে লেখাপড়ায় মনোনিবেশ করলে অধিক সফলতা অর্জন করা সম্ভব।” মাননীয় উপাচার্য ‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ বিনির্মাণে ক্রীড়াবিদসহ শিক্ষার্থীদের স্মার্ট নাগরিক হয়ে গড়ে উঠার আহবান জানান। তিনি চবি শহীদ আবদুর রব হলের সার্বিক সফলতা কামনা করে অতিথিদের সাথে নিয়ে বেলুন ও ফেস্টুন উড়িয়ে উক্ত হলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা-২০২৪ এর শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন।
অনুষ্ঠানে জাতীয় সংগীতের সুরের মুর্চ্ছনায় মাননীয় উপাচার্য জাতীয় পতাকা, মাননীয় উপ-উপাচার্য (একাডেমিক) বিশ্ববিদ্যালয় পতাকা, চবি শহীদ আবদুর রব হলের প্রভোস্ট হল পতাকা এবং শারীরিক শিক্ষা বিভাগের পরিচালক অলিম্পিক পতাকা উত্তোলন করেন। মশাল হাতে মাঠ প্রদক্ষিণ করেন উক্ত হলের কৃতি ক্রীড়াবিদ জহিরুল ইসলাম। বিচারকদের পক্ষে প্রধান বিচারক চবি মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আবুল মনছুর এবং ক্রীড়াবিদদের পক্ষে কৃতি ক্রীড়াবিদ তরিকুল ইসলামকে মাননীয় উপাচার্য শপথবাক্য পাঠ করান। চবি শহীদ আবদুর রব হলের আবাসিক শিক্ষক ও দলের টিম ম্যানেজার মোহাম্মদ সাইদুল ইসলাম সরকার এর নির্দেশনায় হলের শিক্ষার্থী কৃতি ক্রীড়াবিদ তরিকুল ইসলাম এর নেতৃত্বে অনুষ্ঠিত হয় মার্চপাস্ট। হলের পতাকা বহন করেন হলের কৃতি ক্রীড়াবিদ মেহেরাজুল আবেদীন রিফাত।
অনুষ্ঠানে চবি সিনেট ও সিন্ডিকেট সদস্যবৃন্দ, চবি শিক্ষক সমিতির নেতৃবৃন্দ, চবি রেজিস্ট্রার, চবি বিভিন্ন হলের প্রভোস্টবৃন্দ, চবি প্রক্টর ও সহকারী প্রক্টরবৃন্দ, চবি শহীদ আবদুর রব হলের আবাসিক শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ, চবি বিভিন্ন বিভাগীয় সভাপতি, ইনস্টিটিউট ও গবেষণা কেন্দ্রের পরিচালকবৃন্দ, বিভিন্ন অফিস প্রধানবৃন্দ, চবি কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ, ক্রীড়ামোদী শিক্ষার্থীবৃন্দ, প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ এবং সূধীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।