০৭:০৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ৯ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রুমায় সোনালী ব্যাংক ডাকাতি, টাকাসহ অস্ত্র লুট, অপহরণ ম্যানেজার

বান্দরবানের রুমায় একটি সশস্ত্র সন্ত্রাসী দল সোনালী ব্যাংকে হামলা চালিয়ে কোটি টাকার বেশি ও নিরাপত্তা কর্মীর ব্যবহৃত ১৪টি বন্দুক লুট করে নিয়ে গেছে। একইসঙ্গে রুমা শাখার ব্যাংক ম্যানেজার মো.নিজাম উদ্দিনকে অপহরণ করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন রুমা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) মো. দিদারুল আলম।
গতকাল মঙ্গলবার(২ এপ্রিল) রাত ৯ টায় রুমা উপজেলা সদর শাখা সোনালী ব্যাংকে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।
স্থানীয়রা জানান, রাত ৯টার দিকে একদল সশস্ত্র সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে সোনালী ব্যাংকের গ্রীল ভেঙ্গে ব্যাংকের লকারে থাকা টাকা, নিরাপত্তা কর্মীর ব্যবহৃত ১৪টি অস্ত্র লুট করে। সেইসঙ্গে ওই শাখার ব্যাংক ম্যানেজারকে অপহরণ করে নিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। বর্তমানে সেনাবাহিনী ও পুলিশ ব্যাংকটি তাদের নিয়ন্ত্রণে রেখেছে। এলাকার স্থানীয়রা খুবই আতংকে রয়েছে। পুলিশ ও সেনাবাহিনীর টহল জোড়দার করা হয়েছে বলে জানান।
রুমা উপজেলা চেয়ারম্যান উহ্লাচিং মারমা স্থানীয়দের বরাতে জানান, আনুমানিক রাত ৯টার দিকে তারাবি নামাজের সময় শতাধিক কেএনএফ সদস্য চতুর্দিকে ঘেরাও করে সবার মোবাইল কেড়ে নেন। পরে নিরাপত্তা কর্মীদের অস্ত্র লুট করে সোনালী ব্যাংক ম্যানেজার মোঃ নিজাম উদ্দিনকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে বলে জানান।
রুমা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত)  মো.দিদারুল আলম সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রুমা শাখার সোনালী ব্যাংকের ডাকাতির ঘটনায় নিরাপত্তা কর্মীর ব্যবহৃত ১৪টি অস্ত্র ও ব্যাংক ম্যানেজারকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে। তবে টাকার পরিমাণ সঠিকভাবে জানাতে পারেননি।
জনপ্রিয় সংবাদ

রুমায় সোনালী ব্যাংক ডাকাতি, টাকাসহ অস্ত্র লুট, অপহরণ ম্যানেজার

আপডেট সময় : ০৮:৫৯:২৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৩ এপ্রিল ২০২৪
বান্দরবানের রুমায় একটি সশস্ত্র সন্ত্রাসী দল সোনালী ব্যাংকে হামলা চালিয়ে কোটি টাকার বেশি ও নিরাপত্তা কর্মীর ব্যবহৃত ১৪টি বন্দুক লুট করে নিয়ে গেছে। একইসঙ্গে রুমা শাখার ব্যাংক ম্যানেজার মো.নিজাম উদ্দিনকে অপহরণ করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন রুমা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) মো. দিদারুল আলম।
গতকাল মঙ্গলবার(২ এপ্রিল) রাত ৯ টায় রুমা উপজেলা সদর শাখা সোনালী ব্যাংকে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।
স্থানীয়রা জানান, রাত ৯টার দিকে একদল সশস্ত্র সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে সোনালী ব্যাংকের গ্রীল ভেঙ্গে ব্যাংকের লকারে থাকা টাকা, নিরাপত্তা কর্মীর ব্যবহৃত ১৪টি অস্ত্র লুট করে। সেইসঙ্গে ওই শাখার ব্যাংক ম্যানেজারকে অপহরণ করে নিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। বর্তমানে সেনাবাহিনী ও পুলিশ ব্যাংকটি তাদের নিয়ন্ত্রণে রেখেছে। এলাকার স্থানীয়রা খুবই আতংকে রয়েছে। পুলিশ ও সেনাবাহিনীর টহল জোড়দার করা হয়েছে বলে জানান।
রুমা উপজেলা চেয়ারম্যান উহ্লাচিং মারমা স্থানীয়দের বরাতে জানান, আনুমানিক রাত ৯টার দিকে তারাবি নামাজের সময় শতাধিক কেএনএফ সদস্য চতুর্দিকে ঘেরাও করে সবার মোবাইল কেড়ে নেন। পরে নিরাপত্তা কর্মীদের অস্ত্র লুট করে সোনালী ব্যাংক ম্যানেজার মোঃ নিজাম উদ্দিনকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে বলে জানান।
রুমা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত)  মো.দিদারুল আলম সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রুমা শাখার সোনালী ব্যাংকের ডাকাতির ঘটনায় নিরাপত্তা কর্মীর ব্যবহৃত ১৪টি অস্ত্র ও ব্যাংক ম্যানেজারকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে। তবে টাকার পরিমাণ সঠিকভাবে জানাতে পারেননি।