০৪:৫৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

হোসেনপুরে এক রাতেই ৩টি বৈদ্যুতিক টান্সমিটার চুরি

কিশোরগঞ্জের হোসেনপুরে সেচ কাজে ব্যবহৃত ৩টি বৈদ্যুতিক টান্সমিটার চুরি হয়েছে। বৃহস্পতিবার (০২ মে) রাতে উপজেলার সিদলা ইউনিয়নের চর বিশ্বনাথপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।
জানা গেছে, এদিন দিবাগত রাত ১২টার পর থেকে ভোর হওয়ার আগে কোন এক সময় উপজেলার চরবিশ্বনাথপুর গ্রামের কৃষক কফিল উদ্দিন, আব্দুল মোতালিব ও কৃষক আহমেদ আলীর সেচ কাজে ব্যবহৃত টান্সফর্মারগুলো চুরি হয় ।এতে চলতি বোরো মৌসুম ও সবজি চাষে সেচ অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।
কৃষক আনোয়ার মিয়া জানান, বৃহস্পতিবার রাত ১১টা পর্যন্ত মটার চালু ছিলো এর পর রাতে মেশিন বন্ধ করে রেখে বাড়িতে চলে আসে পর দিন শুক্রবার সকালে গিয়ে দেখেন ওই এলাকার আরো ২টি সহ ৩ জায়গা থেকে ৩টি টান্সমিটার চোরেরা চুরি করে নিয়ে গেছে।
এ বিষয়ে বিদ্যুৎ অফিসে জানানো হলে লাইনম্যান মো.রিপন মিয়া চুরি হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন,একটি ১০ কেভি ও ২টি ৫ কেভির টান্সমিটার চুরি হয়েছে। যার বাজার মূল্য এক লাখ ৪৫ হাজার টাকা বলেও জানান তিনি। চুরি বিষয়টি তিনি লাইনম্যান দ্বারা নিশ্চিত হয়ে রির্পোট করে থানায় অভিযোগ দায়ের করবেন বলে হোসেনপুর জোনাল অফিসের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম) মোহাম্মদ সোহেল রানা জানান।
হোসেনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাহিদ হাসান সুমন জানান, টান্সমিটার চুরি বিষয়টি আমাকে কেহ জানায়নি।বিষয়টি আপনার কাছ থেকে জানলাম। কেহ অভিযোগ দায়ের করলে বিষয়টি খতিয়ে দেখে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার নিশ্চয়তা দেন।

ঘূর্ণিঝড় রেমাল মোকাবেলায় কতটুকু প্রস্তুত পবিপ্রবি?

হোসেনপুরে এক রাতেই ৩টি বৈদ্যুতিক টান্সমিটার চুরি

আপডেট সময় : ০৬:৫১:৫৩ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৩ মে ২০২৪
কিশোরগঞ্জের হোসেনপুরে সেচ কাজে ব্যবহৃত ৩টি বৈদ্যুতিক টান্সমিটার চুরি হয়েছে। বৃহস্পতিবার (০২ মে) রাতে উপজেলার সিদলা ইউনিয়নের চর বিশ্বনাথপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।
জানা গেছে, এদিন দিবাগত রাত ১২টার পর থেকে ভোর হওয়ার আগে কোন এক সময় উপজেলার চরবিশ্বনাথপুর গ্রামের কৃষক কফিল উদ্দিন, আব্দুল মোতালিব ও কৃষক আহমেদ আলীর সেচ কাজে ব্যবহৃত টান্সফর্মারগুলো চুরি হয় ।এতে চলতি বোরো মৌসুম ও সবজি চাষে সেচ অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।
কৃষক আনোয়ার মিয়া জানান, বৃহস্পতিবার রাত ১১টা পর্যন্ত মটার চালু ছিলো এর পর রাতে মেশিন বন্ধ করে রেখে বাড়িতে চলে আসে পর দিন শুক্রবার সকালে গিয়ে দেখেন ওই এলাকার আরো ২টি সহ ৩ জায়গা থেকে ৩টি টান্সমিটার চোরেরা চুরি করে নিয়ে গেছে।
এ বিষয়ে বিদ্যুৎ অফিসে জানানো হলে লাইনম্যান মো.রিপন মিয়া চুরি হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন,একটি ১০ কেভি ও ২টি ৫ কেভির টান্সমিটার চুরি হয়েছে। যার বাজার মূল্য এক লাখ ৪৫ হাজার টাকা বলেও জানান তিনি। চুরি বিষয়টি তিনি লাইনম্যান দ্বারা নিশ্চিত হয়ে রির্পোট করে থানায় অভিযোগ দায়ের করবেন বলে হোসেনপুর জোনাল অফিসের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম) মোহাম্মদ সোহেল রানা জানান।
হোসেনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাহিদ হাসান সুমন জানান, টান্সমিটার চুরি বিষয়টি আমাকে কেহ জানায়নি।বিষয়টি আপনার কাছ থেকে জানলাম। কেহ অভিযোগ দায়ের করলে বিষয়টি খতিয়ে দেখে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার নিশ্চয়তা দেন।